1. [email protected] : admi2017 :
  2. [email protected] : Daily Khabor : Daily Khabor
  3. [email protected] : shaker :
  4. [email protected] : shamim :
বৃহস্পতিবার, ২১ অক্টোবর ২০২১, ০৫:৫৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
অক্টোবরের শেষে ফেসবুকের নাম বদল সরকারি চাকরির প্রশ্ন ফাঁসে সর্বোচ্চ ১০ বছর কারাদণ্ড সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজব, বিভ্রান্তি ছড়ালেই ব্যবস্থা স্ত্রী ও ভাইয়ের হিসাবে কোটি কোটি টাকা লেনদেন অডিট রিপোর্টের ওপর নির্ভর করছে ইভ্যালির ভাগ্য স্বাস্থ্যে চাকরি করে নজরুলের সম্পদ হয়েছে ৬ কোটি ১৭ লাখ টাকা মাত্র পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী আজ ফাইন্যান্সিয়াল টাইমসে প্রধানমন্ত্রীর নিবন্ধ: উন্নত দেশগুলো ক্ষতিগ্রস্থদের গুরুত্ব দিচ্ছে না ই-কমার্স প্রতারণা:১১ প্রতিষ্ঠানের অ্যাকাউন্টে মাত্র ১৩৬ কোটি,গ্রাহকের পাওনা ৫ হাজার কোটি টাকা বিভিন্ন মন্ত্রনালয়ের ৪২ হাজার ২৯৮টি পদ বিলুপ্ত

এক বাঁশিতেই ফাইনালের স্বপ্ন শেষ

ডেইলি খবর নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ১৪ অক্টোবর, ২০২১
  • ৬ বার পড়া হয়েছে

প্রভাত বোধকরি সবসময় দিবসের পূর্বাভাস দেয় না। নেপালের বিপক্ষে সেমিফাইনালের তাপ ছড়ানো ম্যাচে মাত্র ৯ মিনিটের মধ্যেই লিডও নিল বাংলাদেশ। ম্যাচের ৮৬ মিনিট পর্যন্ত ১-০ লিডও ধরে রাখল জামাল ভূঁইয়ারা। কিন্তু শেষ রক্ষা হলো না। রেফারির এক বাঁশিতেই শেষ হয়ে গেল বাংলাদেশের ফাইনাল স্বপ্ন। ১-১ ড্রয়ে চলতি সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে সবার আগে ফাইনালে পৌঁছে গেল নেপাল।

১৬ বছরের খরা কাটিয়ে ফাইনালে জায়গা করে নেওয়ার জন্য জামাল ভূঁইয়াদের সামনে জয়ই ছিল একমাত্র বিকল্প। ৮৬ মিনিট পর্যন্ত লিড ধরে রেখে স্বপ্নের খুব কাছাকাছিও পৌঁছে গিয়েছিল বাংলাদেশ। এরপরই বিনা মেঘে বজ্রপাত। বাংলাদেশ বক্সের মধ্যে শূন্যে ভাসা বল। জটলার মধ্যে বলের দখল নিতে পড়ে গেলেন নেপালের ফরোয়ার্ড। বেজে উঠল উজবেক রেফারি আখরল রিসকুলায়েভের বাঁশি। বাংলাদেশের বিপক্ষে দিলেন পেনাল্টি। যদিও টিভি রিপ্লেতে সাদউদ্দিনের সঙ্গে নেপালি ফরোয়ার্ডের কোনো সংঘর্ষের ঘটনা দেখা যায়নি। রেফারির কল্যাণে পাওয়া এই শেষ সুযোগ কাজে লাগালেন নেপালের অঞ্জন বিস্তা। বাকি সময়েও আর নাটকীয় কিছু ঘটেনি। ফাইনালের আগেই বিদায়ঘণ্টা বাজল অস্কার ব্রুজনের শিষ্যদের। টানা দুই হারে শিরোপা রেস থেকে ছিটকে গেল জামালরা। ৪ খেলায় ৫ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের চতুর্থ নিয়ে সাফ মিশন শেষ করল বাংলাদেশ।

বুধবার মালদ্বীপের রাজধানী মালের রাশমি ধান্দু স্টেডিয়ামে ম্যাচের শুরুর সঙ্গে শেষের দৃশ্যপট সম্পূর্ণ বিপরীত। মাত্র ৯ মিনিটে জামালের ফ্রিকিক বিপক্ষ দলের একজনের শরীরে লেগে চলে অরক্ষিত সুমন রেজার কাছে। বল জালে জড়াতে কোনো ভুল করেননি ঘরোয়া ফুটবলে উত্তরা বারিধারার এই ফরোয়ার্ড। এরপর রক্ষণদুর্গ আগলে রাখার লড়াই।

ম্যাচের ৭৯ মিনিটে প্রথম বিপত্তি। ভুল বোঝাবুঝিতে নেপালের একটি আক্রমণ রুখতে পোস্ট ছেড়ে বেরিয়ে আসলেন ম্যাচজুড়েই দুর্দান্ত খেলা আনিসুর রহমান জিকো। এ সময় ডি-বক্সের বাইরে বল হাতে লেগে যায় বাংলাদেশ গোলরক্ষকের। রেফারি সরাসরি দেখান লালকার্ড। ১০ জনের দলে পরিণত হয় বাংলাদেশ। এর ৭ মিনিট পর গুরুদণ্ড দিলেন রেফারি। সেই সঙ্গে অপমৃত্যু ঘটল ফাইনাল স্বপ্নের। সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে বাংলাদেশ সর্বশেষ ফাইনাল খেলেছে ২০০৫ সালে। বলাবাহুল্য এই আসরে প্রথমবারের মতো ফাইনালে উঠল নেপাল।

বিজ্ঞাপন

এ জাতীয় আরো খবর