1. [email protected] : admi2017 :
  2. [email protected] : Daily Khabor : Daily Khabor
  3. [email protected] : shaker :
  4. [email protected] : shamim :
বৃহস্পতিবার, ০৫ অগাস্ট ২০২১, ০১:৫২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টানা দ্বিতীয় জয় ,৫ উইকেট বাংলাদেশের চিত্রনায়িকা পরীমনি আটক, বিপুল পরিমাণ মাদক জব্দ বনানীর পরীমনির ফ্ল্যাটে ঢুকে তাজ্জব র‌্যাব,বাসা নয় যেন ‘মদের বার’ মধ্যরাতে মদারু স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতার মাতলামি র‌্যাবের অভিযানে বিপুল পরিমান বিদেশী মদসহ পরীমনি ‘আটক’ বিয়ে করেছেন ১১টা, বিপুল টাকা হাতিয়েছেন মৌ সাবেক স্বামীদের থেকে সাংবাদিকতার নামে কী হচ্ছে, দেখেন না: দুদক আইনজীবীকে হাইকোর্ট বাবুলের ‘প্রেমিকা’ গায়ত্রীর গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছে ইউএনএইচসিআর কথিত মডেলদের নাইট পার্টিতে ধনীর দুলালরা টিকা ছাড়া বাইরে বের হলে শাস্তির খবর সঠিক নয় : স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়

চুক্তি নিয়োগে থেকে সরকারের ৫৮৪ কোটি টাকা আত্মসাৎ

ডেইলি খবর ডেস্ক
  • আপডেট সময় বুধবার, ২১ অক্টোবর, ২০২০
  • ৭৩ বার পড়া হয়েছে

তিন বছরের চুক্তি নিয়োগ পেয়েই সরকারের ৫৮৪ কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছেন বাংলাদেশ ইনফ্রাস্ট্রাকচার ফাইন্যান্স ফান্ড লিমিটেডের (বিআইএফএফএল) সাবেক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এস. এম. ফরমানুল ইসলামসহ একটি চক্র।

প্রতারণা ও জালিয়াতির আশ্রয়ে সরকারের ৫৮৪ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। ২০ অক্টোবর দুদকের ঢাকা সমন্বিত জেলা কার্যালয়ে সংস্থাটির সহকারী পরিচালক মো: সাইফুল ইসলাম বাদী হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেন।

দুদকের জনসংযোগ (পরিচালক) কর্মকর্তা প্রনব কুমার ভট্টাচার্য্য সংবাদ মাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, মামলার আসামীরা হলেন বিআইএফএফএল’র সাবেক নির্বাহী পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এস. এম. ফরমানুল ইসলাম ও সিনিয়র প্রিন্সিপাল অফিসার, ট্রেজারি বিভাগ (হেড অব ট্রেজারার) মো: নিসারুল কবির সিদ্দিকী। মামলার বিবরণে বলা হয়েছে, আসামিরা পরস্পর যোগসাজশে দুর্নীতি ও ক্ষমতার অপব্যবহার করে বিআইএফএফএলের পরিচালনা পর্ষদের অনুমোদন ছাড়া এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বাজার বিভাগের ডিএফআইএম সার্কুলার ও অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের পরিপত্রকে অমান্য করে সরকারি টাকা ঝুঁকিপূর্ণ বেসরকারি ব্যাংক এবং অ-তালিকাভূক্ত আর্থিক প্রতিষ্ঠানে জমা রাখেন। তারা দুটি বেসরকারি ব্যাংকে ১৫০ কোটি ৩ লাখ ৯৩ হাজার ৬৩৫ এবং ১২টি অ-তালিকাভুক্ত আর্থিক প্রতিষ্ঠানে এফডিআর হিসাবে ৪৩৪ কোটি ৬৩ লাখ ২১ হাজার ২৬ টাকা জমা করেন। যার মোট পরিমাণ ৫৮৪ কোটি ৬৭ লাখ ১৪ হাজার ৬৬১ টাকা। সংশ্লিষ্ট সুত্রে জানা যায়, ফরমানুল ইসলাম ২০১৫ সালের ১১ এপ্রিল থেকে তিন বছরের জন্য নিয়োগ পান। ২০১৯ সালের ২৮ জুলাই তিনি পরিচালনা পর্ষদ সভা চলার সময় ব্যক্তিগত কারণ উল্লেখ করে চাকরি থেকে তিনি অব্যাহতি নেন। আর সময়ের মধ্যে এই বিপুল পরিমান সরকারী অর্থ লুটে নেন তিনি।

বিজ্ঞাপন

এ জাতীয় আরো খবর

বিজ্ঞাপন