1. [email protected] : admi2017 :
  2. [email protected] : Daily Khabor : Daily Khabor
  3. [email protected] : rubel :
  4. [email protected] : shaker :
  5. [email protected] : shamim :
বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ০৬:৫৮ অপরাহ্ন

‘ঝামেলামুক্ত’ নেতা খুঁজছে হেফাজত

ডেইলি খবর নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট সময় বুধবার, ১৬ নভেম্বর, ২০২২
  • ১৭ বার পড়া হয়েছে

বিতর্কিত নেতাদের সাইডলাইনে বসিয়ে দিয়ে নতুন করে কমিটি সম্প্রসারণ ও পুনর্গঠন করছে হেফাজতে ইসলাম। এ জন্য ‘ঝামেলামুক্ত’ নেতা খুঁজছে তারা। জেলা থেকে কেন্দ্র পর্যন্ত সব কমিটিতে প্রাধান্য দেওয়া হচ্ছে নতুন মুখ। হামলা মামলার ঝামেলা নেই এমন নেতাদের ‘ব্যাকআপ’ হিসেবে তৈরি করা হচ্ছে। জাতীয় নির্বাচনের আগেই এই ‘ব্যাকআপ’ দাঁড় করাতে চায় সংগঠনটি। এ জন্য কাজ করেছে পাঁচ সদস্যের একটি বিশেষ তদারকি কমিটি।

রাজপথের প্রধান বিরোধী দল বিএনপির ঢাকায় আগামী ১০ ডিসেম্বরের মহাসমাবেশ ঘিরে রাজনীতির মাঠ এমনিতেই উত্তেজনায় ঠাসা। এর মধ্যে হেফাজতের এমন প্রস্তুতি দিচ্ছে নতুন কিছুর ইঙ্গিত। জাতীয় ওলামা মাশায়েখ সম্মেলনের মধ্যেমে আগামী ১৭ ডিসেম্বর ঢাকায় বড় জমায়েত করার ঘোষণাও দিয়েছে হেফাজত। এর প্রস্তুতি হিসেবে তারা কাজ করছে ৬৪ জেলায়।

হেফাজতের সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা মীর ইদরীস বলেন, ‘নতুন করে সাংগঠনিক শক্তি বাড়াতে চাই আমরা। এ জন্য অক্টোবরে অনুষ্ঠিত সর্বশেষ বৈঠকে মাওলানা তাজুল ইসলামকে আহ্বায়ক ও মাওলানা লোকমান হাকিমকে সদস্য সচিব করে ১৭ সদস্যের চট্টগ্রাম মহানগর আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়েছে। এ ছাড়া নতুন করে ২৯ জনকে কেন্দ্রীয় কমিটিতে ও ১১ জনকে ঢাকা মহানগর কমিটিতে ঢোকানো হয়েছে। নতুন করে যাদের অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে তাদের ৯০ শতাংশের নামে নেই কোনো মামলা। সাংগঠনিক কার্যক্রম চালাতে ভবিষ্যতে যাতে অসুবিধা না হয় সে জন্য নতুন মুখকে কমিটির জন্য বেছে নেওয়া হচ্ছে।’

সংগঠনের নায়েবে আমির জহুরুল ইসলাম জানান, দেশের ৬৪ জেলায় নতুন মুখ খুঁজতে মহাসচিব আল্লামা সাজিদুর রহমানকে প্রধান করে পাঁচ সদস্যের উপকমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন- মাওলানা মুহিউদ্দীন রাব্বানী, মাওলানা মীর ইদরীস, মাওলানা আবদুল কাইয়ুম সোবহানী ও মুফতী কিফায়াতুল্লাহ আজহারী। এছাড়া প্রচার সম্পাদক মাওলানা মুহিউদ্দীন রাব্বানী ও কেন্দ্রীয় দাওয়া সম্পাদক মাওলানা আবদুল কাইয়ুম সোবহানীকে কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সচিব করা হয়েছে। মুফতি কিফায়াতুল্লাহ আজহারীকে করা হয়েছে প্রচার সম্পাদক ও মাওলানা রাশেদ বিন নূরকে দপ্তর সম্পাদক।

সংগঠনের আরেক সাংগঠনিক সম্পাদক আনোয়ার রাব্বানী জানান, এবার কেন্দ্রীয় কমিটি হবে ৩১৩ সদস্যের। মহানগর ও জেলা কমিটি হবে ২০১ সদস্যের। সব কমিটি আগামী তিন মাসের মধ্যে করার লক্ষ্য আছে তাঁদের। কেন্দ্রীয় কমিটিতে এবার যাঁদের নতুন করে রাখা হয়েছে তাঁরা কখনও বিতর্কিত কর্মকাণ্ডে জড়িত ছিলেন না।

ঢাকার বসুন্ধরা মাদ্রাসার মুফতি আরশাদ রহমানী নতুন করে যুক্ত হয়েছেন হেফাজতের কমিটিতে। তাঁর নামে মামলা নেই বলে জানিয়েছে হেফাজত। নতুন করে আরও রাখা হয়েছে সুনামগঞ্জের মাওলানা আবদুল বাসির, রাঙ্গুনিয়ার মাওলানা শাহাদত হোসেন, মাওলানা খোবাইব, হাটহাজারী মাদ্রাসার শিক্ষক মাওলানা আশরাফ আলী নিজামপুরী, আমলাপাড়ার মাওলানা আবদুল কাদের, রংপুরের মাওলানা ইউনুস, নরসিংদীর মাওলানা শওকত হোসেন সরকার, মানিকগঞ্জের মাওলানা সাঈদ নূর, ফরিদপুরের মাওলানা আকরাম আলী, মাওলানা হেলাল উদ্দিন, ড. নুরুল আবসার আজহারী, মুফতি কেফায়েতুল্লাহ আজহারী, মাওলানা তৈয়ব হালীম, টঙ্গীর মুফতি মাসুদুল করীম, বরিশালের মাওলানা নুরুর রহমান বেগ, নোয়াখালীর মাওলানা নিজামদ্দীন, বাগেরহাটের মাওলানা আবদুল মা’বুদ, কক্সবাজারের মাওলানা মুসলিম, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মাওলানা বোরহান উদ্দীন কাসেমী, চকরিয়ার মাওলানা আনওয়ার, টেকনাফের মাওলানা কেফায়েতউল্লাহ, নাজিরহাট মাদ্রাসার নায়েবে মোহতামিম মাওলানা ইয়াহহিয়া, মাওলানা শামসুল ইসলাম জিলানী, মাওলানা আবদুল্লাহ পোরশা, ঠাকুরগাঁওয়ের মাওলানা শরিফ, হবিগঞ্জের মাওলানা তাফহিমুল হক, মাওলানা জুনাইদ বিন ইয়াহিয়া ও মাওলানা রাশেদ বিন নুরকে। তাঁদের কারও নামেই মামলা নেই।

ঢাকা মহানগর কমিটিতে নতুন করে যাঁদের অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে তার অধিকাংশই নতুন মুখ। একাধিক মামলা থাকার ঝামেলাও নেই তাঁদের। এর মধ্যে আছেন লালমাটিয়া মাদ্রাসার মুহতামীম মাওলানা মুহাম্মদ ফারুক, মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী, মাওলানা লোকমান মাযহারী, সাভার ব্যাংক কলোনি মাদ্রাসার মাওলানা আবদুল্লাহ, মাওলানা ইউসুফ সাদিক হক্কানী, মাওলানা আবদুল্লাহ ইয়াহিয়া, মাওলানা ইলিয়াস হামিদী, পীরজঙ্গি মাদ্রাসার নায়েবে মোহতামিম মাওলানা ওয়াহিদুর রহমান, মোহাম্মদপুর ওয়াহেদীয়া মাদ্রাসার মাওলানা যুবায়ের আহমদ, চকবাজার ছোট মসজিদের খতিব মাওলানা জসীমউদ্দীন ও দুদক জামে মসজিদের খতিব মুফতি জুবায়ের রশিদ।

চট্টগ্রাম মহানগর আহ্বায়ক কমিটির নতুন আহ্বায়ক মাওলানা তাজুল ইসলাম ও সদস্য সচিব মোজাহেরুল উলুম মাদ্রাসার মোহতামিম মাওলানা লোকমান হাকিমের নামেও নেই কোনো মামলা। মামলা না থাকা আরও যাঁরা নতুন কমিটিতে পদ পেয়েছেন তাঁদের মধ্যে রয়েছেন- মাওলানা ফোরকানউল্লাহ খলীল, মাওলানা আলী ওসমান, মাওলানা হারুন, মাওলানা মুনীর উদ্দিন, মাওলানা ইয়াসিন, মাওলানা হাসান মুরাদাবাদী, মুফতি শিহাব উদ্দিন ইস্পাহানী, মাওলানা আনোয়ার রব্বানী, মাওলানা এনায়েতুল্লাহ, মাওলানা সায়েমুল্লাহ, মাওলানা ফয়সাল বিন তাজুল ইসলাম, মাওলানা জাকারিয়া মাদানী, মাওলানা জয়নাল কুতুবী, মাওলানা শহিদুল ইসলাম, মাওলানা মানজুরুল কাদের।

বিজ্ঞাপন

এ জাতীয় আরো খবর