1. [email protected] : admi2017 :
  2. [email protected] : Daily Khabor : Daily Khabor
  3. [email protected] : rubel :
  4. [email protected] : shaker :
  5. [email protected] : shamim :
শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯:১১ পূর্বাহ্ন

নাসির গøাসের ১৪ কোটি টাকা ভ্যাট ফাঁকি

ডেইলি খবর নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট সময় শুক্রবার, ৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ১২৫ বার পড়া হয়েছে

ডেইলি খবর ডেস্ক: করোনার আগেই নাসির গøাস মুখোশ পরে আছে। মুখোশের আড়ালে সরকারকে ১৪ কোটি টাকা ভ্যাট ফাকি দিয়েছে। মাঝে মাঝে তারা কিছু মিডিয়াকর্মি জাপানসহ বিভিন্ন দেশে নিয়ে তাদের কর্মকান্ড স্বচ্ছতা বুঝাতে চায়। এসবই তাদের মুখোশ পড়ার ভেতরের ইতিহাস। বিক্রিত তথ্য গোপন করে বৃহৎ গøাস উৎপাদনকারী নাসির গøাস ইন্ডাস্ট্রিজ ১৪ কোটি টাকার ভ্যাট ফাঁকি দিয়েছে। ভ্যাট গোয়েন্দা অধিদপ্তরের অডিটে এ তথ্য উঠে এসেছে। পাওনা আদায়ে প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে ভ্যাট আইনে মামলা করা হয়েছে। ভ্যাট গোয়েন্দা এ তথ্য জানিয়েছে।সূত্র জানায়,ভ্যাট ফাঁকির অভিযোগে ভ্যাট গোয়েন্দার একটি দল প্রতিষ্ঠানটির ২০১৪ সালের জুলাই থেকে ২০১৮ সালের জুন পর্যন্ত অডিট রিপোর্ট,ভ্যাট রিটার্ন,ট্রেজারি চালানের কপি ও অন্য দলিলাদি পর্যালোচনা করে। এতে দেখা যায়,প্রতিষ্ঠানটি আলোচ্য মেয়াদে ২ কোটি ৯ লাখ টাকা ভ্যাট পরিশোধ করেছে। কিন্তু প্রতিষ্ঠানটির ভ্যাট দেওয়ার কথা ছিল ৫ কোটি ২৯ লাখ টাকা।এক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানটি ৩ কোটি ২০ লাখ টাকা ভ্যাট ফাঁকি দিয়েছে। অর্থাৎ নাসির গøাস প্রকৃত বিক্রয় তথ্য গোপন করে ভ্যাট ফাঁকি দিয়েছে। এ ফাঁকির ওপর ভ্যাট আইন অনুসারে মাসভিত্তিক ২ শতাংশ হারে ১ কোটি ৫২ লাখ টাকা সুদ প্রযোজ্য।এছাড়া তদন্ত মেয়াদে প্রদেয় ও চলতি হিসাবের পার্থক্য, সোডিয়াম সালফেট অতিরিক্ত ব্যবহারের ওপর রেয়াত কর্তন,প্রাকৃতিক গ্যাস অতিরিক্ত ব্যবহারের ওপর রেয়াত কর্তন,বিজ্ঞাপন অতিরিক্ত ব্যবহারের ওপর রেয়াত কর্তন, মিক্সার গ্যাস অতিরিক্ত ব্যবহারের ওপর রেয়াত কর্তন, উপকরণ মূল্য ৭ দশমিক ৫ শতাংশের বেশি বৃদ্ধি পাওয়ায় রেয়াত কর্তন, নির্ধারিত সময় অতিক্রান্ত হওয়ায় রেয়াত কর্তন, ঘোষণায় করযোগ্য মূল্য ভিত্তির মধ্যে অন্তর্ভুক্ত না থাকায় রেয়াত কর্তনের কারণে প্রতিষ্ঠানের নানা অনিয়ম পাওয়া গেছে।এছাড়াও আমদানি পণ্য (স্পেয়ার পার্টস) ক্রয় রেজিস্টারে এন্ট্রি না করে খোলাবাজারে বিক্রি করায় রাজস্ব বাবদ প্রতিষ্ঠানটি কোনো ভ্যাট পরিশোধ করেনি। এক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানটির অপরিশোধিত মূসক বাবদ ৮ কোটি টাকা ভ্যাট ফাঁকি উদ্ঘাটন করা হয়। সব মিলিয়ে প্রায় ১৪ কোটি ৬৫ লাখ টাকার ভ্যাট ফাঁকির প্রমাণ পেয়েছে ভ্যাট গোয়েন্দা।ভ্যাট গোয়েন্দা সূত্র জানায়, ফাঁকি দেওয়া ভ্যাট আদায় এবং পরবর্তী আইনানুগ কার্যক্রম গ্রহণ করতে সংশ্লিষ্ট ভ্যাট কমিশনারেটকে জানানো হয়েছে। একই সঙ্গে প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম আরও মনিটরিং করার জন্যও অনুরোধ করা হয়েছে।সুত্র-যুগান্তর

 

বিজ্ঞাপন

এ জাতীয় আরো খবর