1. [email protected] : admi2017 :
  2. [email protected] : Daily Khabor : Daily Khabor
  3. [email protected] : rubel :
  4. [email protected] : shaker :
  5. [email protected] : shamim :
শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯:১৮ পূর্বাহ্ন

পশ্চিমবঙ্গে ১৪ দিনের জেল হাজতে পরিদর্শক সোহেল

কলকাতা প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় শুক্রবার, ১০ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ৮৬ বার পড়া হয়েছে

ভারতে আটক বাংলাদেশের বনানী থানার পরিদর্শক সোহেল রানাকে ১৪ দিনের জেল হাজতের নির্দেশ দিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের কোচবিহার জেলার মেখলিগঞ্জ মহকুমা আদালত।

তিন দিনের রিমান্ড শেষে বুধবার ফের তাকে আদালতে তোলা হলে এ ১৪ দিনের জেল হাজতের নির্দেশ দেয় বিচারক বিনোদ কুমার মাহাতো। এদিন আদালতে সোহেল রানার আইনজীবী তপন রায় প্রধান তার মক্কেলের জামিনের আবেদন জানান। আবেদন না-মঞ্জুর করে বিচারক আগামী ২২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত জেল হাজতের নির্দেশ দেন। তবে জেলেও চিকিৎসকের তত্ত্বাবধানে থাকবেন সোহেল।

এর আগে গত রবিবার তাকে আদালতে তোলা হলে ৩ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে বিচারক। সেই রিমান্ড শেষে এদিন ফের আদালতে তোলা হয় সোহেলকে।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার কোচবিহার জেলার চ্যাংড়াবান্ধা আন্তর্জাতিক সীমান্ত সংলগ্ন ভারতীয় ভূখণ্ড থেকে বাংলাদেশ পুলিশের ওই কর্মকর্তাকে আটক করে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)। এরপর স্থানীয় মেখলিগঞ্জ পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয় রানাকে। ভারতে বেআইনি অনুপ্রবেশের অভিযোগে বাংলাদেশের ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ই-অরেঞ্জের মালিক সোনিয়া মেহজাবিনের আপন ভাই ওই প্রতিষ্ঠানের পৃষ্ঠপোষক শেখ সোহেল রানার বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির বিভিন্ন ধারায় মামলা দায়ের করা হয়। সোহেল রানা ছাড়াও আরো একাধিক মানুষের বিরুদ্ধে কয়েক হাজার কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ আছে।

বাংলাদেশের গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়া জেলার গিমাডাঙা গ্রামের বাসিন্দা ৪৬ বছর বয়সী সোহেল রানাকে আটকের সময় তার কাছ থেকে উদ্ধার করা হয় একাধিক ব্যাংক ডেবিট কার্ড, মার্কিন ডলার ও ইউরো, বাংলাদেশি মোবাইল সিম, মোবাইল ফোন এবং বেশ কিছু ওষুধ। বিএসএফের কাছে জেরায় ওই বাংলাদেশি পুলিশ কর্মকর্তা জানায় ভারত হয়ে নেপালের কাঠমান্ডু পাড়ি দেওয়ার উদ্দেশ্য ছিল তার। অবৈধভাবে সীমান্ত অতিক্রম করে ভারতে প্রবেশের জন্য দালালকে ১০ হাজার বাংলাদেশি টাকাও দেয় বলে সোহেল প্রাথমিক তদন্তে জানায় বলে দাবি করে বিএসএফ।

বিজ্ঞাপন

এ জাতীয় আরো খবর