1. [email protected] : admi2017 :
  2. [email protected] : Daily Khabor : Daily Khabor
  3. [email protected] : shaker :
  4. [email protected] : shamim :
রবিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২১, ০৫:৪৩ অপরাহ্ন

‘মেসি মানুষ, কিন্তু আমার বাবা ঈশ্বর’

ডেইলি খবর নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট সময় শনিবার, ৮ আগস্ট, ২০২০
  • ৩৬ বার পড়া হয়েছে

চ্যাম্পিয়ন্স লিগে নাপোলির বিরুদ্ধে বাঁচা-মরার ম্যাচের আগে লিয়োনেল মেসির উদ্দেশে বার্তা দিলেন ম্যারাডোনা। তবে এই ম্যারাডোনা দিয়েগো নন, তিনি দিয়েগোর পুত্র ম্যারাডোনা জুনিয়র। নাম দিয়েগো সিনাগ্রা। তিনি বললেন, মেসি দারুণ, তবে মানুষ। কিন্তু আমার বাবা ঈশ্বর। তাই কোনো তুলনাই হতে পারে না।

যে নাপোলিকে ম্যারাডোনাই বিখ্যাত করেছিলেন, কাকতালীয়ভাবে ইটালির সেই ক্লাবের বিরুদ্ধেই চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলোয় দ্বিতীয় পর্বে শনিবার পরীক্ষা দিতে নামছেন মেসি। প্রথম পর্বে বার্সা তারকা নিষ্ক্রিয় ছিলেন নাপোলি ম্যানেজার জেন্নারো গাত্তুসোর রণকৌশলে। ১-১ ড্র করেছিল বার্সা। ম্যাচের চব্বিশ ঘণ্টা আগে মারাদোনা পুত্রের এই বার্তা যথেষ্ট তাৎপর্যপূর্ণ। তিনি বলেছেন, আমার বাবার সঙ্গে কারো তুলনা হয় না। আসলে কোনো মানুষের সঙ্গে ভিনগ্রহের কারও কীভাবে আপনি তুলনা করবেন? তবে মেসির প্রশংসাও করেছেন তিনি। বলেছেন, মেসিও এক বিস্ময়। আমরা এটা বলতেই পারি যে ম্যারাডোনা হচ্ছেন ফুটবলের ঈশ্বর। আর মানবসমাজের মধ্যে শ্রেষ্ট মেসি। দুঃখের সঙ্গে বলতে হচ্ছে, কারও ক্ষমতা নেই, আমার বাবার উচ্চতায় পৌঁছনোর। তা অসম্ভব।

নাপোলিতে খেলার সময়, সিনাগ্রার মায়ের সঙ্গে সম্পর্কে জড়ান ম্যারাডোনা। জন্মের বহু বছর পরে তাকে ছেলে হিসেবে স্বীকৃতি দেন বিশ্বকাপজয়ী আর্জেন্টিনার অধিনায়ক। সিনাগ্রা ইটালিতে থাকলেও আর্জেন্টিনায় মেসি ও তার বাবাকে নিয়ে কী হচ্ছে, সব খবরই তিনি রাখেন! বলেছেন, আর্জেন্টিনায় যে-ই মেসির সমালোচনা করুক, জানবেন সে ফুটবলের কিছুই বোঝে না। সিনাগ্রাও একসময় চুটিয়ে ফুটবল খেলেছেন। ইটালির অনূর্ধ্ব-১৭ দলেও ছিলেন। এখন অবশ্য ‘বিচ-ফুটবল’ খেলাই তার পেশা।

ম্যারাডোনার স্মৃতিবিজরিত নাপোলির বিরুদ্ধে ম্যাচের আগে বার্সা শিবিরের অন্দরমহলের পরিস্থিতি খুব একটা স্বস্তিদায়ক নয়। প্রথম পর্বের ফল ১-১ ছিল। এবার লড়াই ঘরের মাঠ ক্যাম্প ন্যু-তে। অন্য সময় হলে ফুটবল পণ্ডিতেরা মেসিদেরই এগিয়ে রাখতেন। কিন্তু বার্সা শিবিরের অশান্তি পরিস্থিতিটাই বদলে দিয়েছে।

ম্যানেজার কিকে সেতিয়েনের ফুটবলারদের সম্পর্ক তলানিতে। ব্রাজিলীয় মিডফিল্ডার আর্থার মেলো ক্ষোভে বার্সেলোনার অনুশীলনে নামাই বন্ধ করে দিয়েছেন। নির্বাসিত থাকায় আর্তুরো ভিদাল, সের্খিয়ো বুস্কেৎস-ও নেই। তবে চোট সারিয়ে দলে ফিরছেন আঁতোয়া গ্রিজম্যান।

এত কিছুর পরও সেতিয়েনের ওপর আস্থা হারাননি বার্সা প্রেসিডেন্ট জোসেপ মারিয়া বার্তোমেউ। আগামী মৌসুমেও তাকে রাখার কথা ঘোষণা করে দিয়েছেন তিনি। যদিও ফুটবল বিশেষজ্ঞেরা মনে করছেন, নাপোলি ম্যাচের ওপরই নির্ভর করছে সেতিয়েনের ভবিষ্যত।

বার্সার ঠিক উল্টো ছবি বায়ার্ন মিউনিখ শিবিরে। প্রথম পর্বে লন্ডনে গিয়ে চেলসিকে ৩-০ হারিয়েছিলেন থোমাস মুলারেরা। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ আটে পৌঁছতে হলে ফ্র্যাঙ্ক ল্যাম্পার্ডের দলকে শনিবার মিউনিখে অন্তত ৪-০ জিততে হবে। যদিও ফুটবল বিশ্লেষকদের মতে অঘটনের সম্ভাবনা ক্ষীণ। বায়ার্ন ম্যানেজার হান্স ফ্লিক বলেছেন, মনে রাখবেন রবার্ট এখন যে ফুটবলটা খেলছে, তার থেকে আরো ভালো খেলতে পারে।

সূত্র: আনন্দবাজার

এ জাতীয় আরো খবর