1. [email protected] : admi2017 :
  2. [email protected] : Daily Khabor : Daily Khabor
  3. [email protected] : shaker :
  4. [email protected] : shamim :
বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১০:৩৮ পূর্বাহ্ন

স্বাগতম ২০২১: করোনা জয় করে এগিয়ে যাওয়ার প্রত্যাশা

ডেইলি খবর নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট সময় শুক্রবার, ১ জানুয়ারি, ২০২১
  • ৫১ বার পড়া হয়েছে

মহাকবি কায়কোবাদ তার নববর্ষ কবিতায় বলেছেন, ‘ওহে পান্থ!/অতীতের সুখ-দুঃখ ভুলে যাও তুমি/ঐ যে ব্রহ্মাণ্ড জুড়ে/সম্মুখে রয়েছে পড়ে/তোমার সে কর্মক্ষেত্র-মহারঙ্গ ভূমি।’ শত বেদনা, দুঃখ-কষ্ট, গ্লানি, প্রাকৃতিক বিপর্যয়, শোক কাটিয়ে মানুষ এগিয়ে যায়। নতুন সূর্যের উদয়ে প্রতিটি জীবন দেখে নতুন স্বপ্ন।
বিশ্ব করোনা মহামারীতে আক্রান্ত। হারিয়ে গেছে অনেক প্রিয় মুখ, প্রিয়জন। ক্ষত-বিক্ষত হয়েছে বিভিন্ন খাত। হারানোর দগদগে ব্যথা গোটা পৃথিবীর মানুষের বুকে। কিন্তু মানুষ তো থেমে থাকার নয়, শুরু করেছে এগিয়ে যাওয়ার জন্য সংগ্রাম। আবিষ্কার করেছে টিকা। আবিষ্কারের পথে ওষুধ। আর মৃত্যু নয়, করোনাভাইরাস জয় করে এগিয়ে যাবে মানবকুল-এটাই নতুন বছরের প্রধান প্রত্যাশা।

নববর্ষ নিয়ে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর এক ভাষণে বলেছিলেন, ‘মানুষের নববর্ষ আরামের নববর্ষ নয়; সে এমন শান্তির নববর্ষ নয়; পাখির গান তার গান নয়, অরুণের আলো তার আলো নয়। তার নববর্ষ সংগ্রাম করে আপন অধিকার লাভ করে; আবরণের আবরণকে ছিন্ন বিদীর্ণ করে তবে তার অভ্যুদয় ঘটে।’

বৃহস্পতিবার রাত ১২টায় ঘড়ির কাঁটা শূন্যের ঘর অতিক্রমের সঙ্গে সঙ্গেই গণনা শুরু হয়েছে নতুন বছরের। ২০২০ সালের ফেলে আসা ক্লান্তি, হতাশা, ক্ষোভ, ভুল, দুঃখকে দূরে সরিয়ে দিয়ে নতুন উদ্যমে পথচলার বাসনা নিয়ে পুবাকাশে উঠেছে ২০২১ সালের নতুন সূর্য। স্বাগতম ২০২১।

খ্রিস্টীয় নববর্ষ উপলক্ষে দেশবাসী, প্রবাসী বাঙালিসহ বিশ্ববাসীকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রাষ্ট্রপতি তার বাণীতে বলেন, মহামারীর ভয়াবহতাকে মোকাবিলা করে নতুন বছরে অমিত সম্ভাবনার পথে এগিয়ে যাক বাংলাদেশ-নববর্ষে এ প্রত্যাশা করি। তিনি দেশবাসীকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে নববর্ষ উদযাপনের আহ্বান জানান। আবদুল হামিদ বলেন, ২০২১ সাল আমাদের জাতীয় জীবনে একটি গুরুত্বপূর্ণ বছর। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও আমাদের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর একটা যুগসন্ধিক্ষণ হচ্ছে ২০২১ সাল। এই যুগসন্ধিক্ষণে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ গঠনে আমাদের নিরলস প্রয়াস চালাতে হবে।

শুভেচ্ছা বাণীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, নতুন বছরে আমরা একটি নতুন বিশ্ব ব্যবস্থার দিকে অগ্রসর হচ্ছি। করোনা মহামারী বিশ্ববাসীকে এক কঠিন বার্তা দিয়েছে। যতই উন্নত হোক না কেন, একা কোনো দেশ শ্রেষ্ঠত্বের দাবি নিয়ে দাঁড়াতে পারবে না। পারস্পরিক সহযোগিতা এবং অংশীদারিত্বের মাধ্যমেই যে কোনো বৈশ্বিক সংকট মোকাবেলা করা সম্ভব। আমাদের সবাইকে এ থেকে শিক্ষা গ্রহণ করতে হবে। তিনি আরও বলেন, আসুন আমরা নতুন বছরে প্রতিজ্ঞা করি, মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি অটুট রেখে জাতির পিতার স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ বিনির্মাণে সহায়ক শক্তি হিসেবে কাজ করব।

পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের মানুষের মতো বাংলাদেশের মানুষের জীবনেও এক বিভীষিকাময় বছর ছিল ২০২০। করোনা মহামারী এলোমেলো করে দিয়েছে চেনা সবকিছু। বিশ্বের মতো বাংলাদেশের মানুষের চোখও তাই নতুন বছরে চেয়ে থাকবে করোনার টিকা ও ওষুধের দিকেই।

২০২১ সাল বাংলাদেশের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি বছর। এ বছরই আমাদের মহান স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী। পাশাপাশি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষ পেরুনোর কাল। ২০২০ সালে মৌল ও উগ্রবাদী শক্তির আস্ফালন দেখেছে জাতি। দেশকে যারা পেছনে নিয়ে যেতে চায় তাদের মাথা মুড়িয়ে দেয়ার অপেক্ষায় রয়েছে দেশ।

দেশে বর্তমানে রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা বিরাজ করছে। আপামর জনসাধারণ চায় স্থিতিশীল পরিবেশটি বজায় থাকবে। এর মধ্যেই গণতন্ত্রের চর্চা আরও বৃদ্ধি পাবে।

গেল বছরে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য অনেকে বেড়েছে। যথেষ্ট উৎপাদন ও সরবরাহ স্বাভাবিক থাকা সত্ত্বেও চাল, পেঁয়াজ, আলুতে নাভিশ্বাস উঠেছে দেশের মানুষের। দেশের সর্বস্তরের মানুষ প্রত্যাশা করেন তারা দুবেলা-দুমুঠো খেয়ে সুখে-শান্তিতে জীবন কাটাবেন। তার জন্য নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য হাতের নাগালেই প্রত্যাশা করেন তারা। পাশাপাশি যেসব কালোবাজারি, চক্র কারসাজি করে এসব দ্রব্যের মূল্য বাড়িয়ে দেয় তাদের শাস্তির আওতায় আনার দাবি রাখেন।

বাংলাদেশ আজ অপ্রতিরোধ্য গতিতে এগিয়ে চলছে। পদ্মা সেতু দৃশ্যমান, মেট্রোরেল নির্মাণাধীন। নতুন বছরে এসব কাজ আরও দৃশ্যমান হবে, চলাচলের উপযোগী হয়ে উঠবে-এটি সবার প্রত্যাশা। শিল্পায়নের জন্য আরও বিনিয়োগবান্ধব অবকাঠামো উন্নয়ন জরুরি। শিল্প ও উৎপাদন খাতের বিকাশের জন্য নানা ধরনের উদ্যোগের তাগিদ রয়েছে নানা মহল থেকে। দেশের প্রতিটি মানুষই মনে করেন রোহিঙ্গারা এ দেশের জন্য ‘বিষফোঁড়া’। তাদের মিয়ানমারে ফেরত যাওয়ার অগ্রগতির বিষয়েও নজর থাকবে সবার।

আজ সবার একটাই প্রার্থনা-শুভ হোক ২০২১।

বিজ্ঞাপন

এ জাতীয় আরো খবর